ইরান ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণ বাড়িয়েছে: আইএইএ

ইরান ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণ বাড়িয়ে দিয়েছে বলে জানিয়েছেন জাতিসংঘের পরমাণু তদারকিবিষয়ক সংস্থা- আইএইএর মহাপরিচালক ইউকিয়া আমানো।

একই সঙ্গে তিনি ইরানের পরমাণু কর্মসূচি নিয়ে উত্তেজনা বেড়ে যাওয়ায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। খবর রয়টার্সের।

সোমবার আইএইএর নির্বাহী পরিষদের ত্রৈমাসিক বৈঠকে তিনি আলোচনার মাধ্যমে এ উত্তেজনা প্রশমনের জন্য সংস্থাটির নির্বাহী পরিষদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

আমানো বলেন, পরমাণু সমঝোতার প্রতি ইরানের পূর্ণ অঙ্গীকারবদ্ধ থাকার ঘটনা দেশটির পরমাণু কর্মসূচি তদারকির ক্ষেত্রে একটি ‘গুরুত্বপূর্ণ অর্জন’। তিনি এ সমঝোতার প্রতি অটল থাকার জন্য আবারও ইরানের প্রতি আহ্বান জানান।

ইরান সম্প্রতি পরমাণু সমঝোতার কিছু ধারার বাস্তবায়ন স্থগিত রাখার যে সিদ্ধান্ত নিয়েছে, আমানো সে কথা উল্লেখ করেন।

তিনি বলেন, ইরান ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণের পরিমাণ বাড়িয়ে দিলেও কী পরিমাণে বাড়িয়েছে তা স্পষ্ট করেনি। কাজেই সমৃদ্ধ ইউরেনিয়ামের পরিমাণ পরমাণু সমঝোতার নির্ধারিত সীমা কবে নাগাদ অতিক্রান্ত হবে তা স্পষ্ট নয়।

গত বছরের মে মাসে আমেরিকা ইরানের পরমাণু সমঝোতা থেকে বেরিয়ে যাওয়া সত্ত্বেও ইউরোপীয় দেশগুলো এ সমঝোতায় অটল থাকার ঘোষণা দেয়।

তারা এ সমঝোতার আওতায় ইরানকে প্রতিশ্রুত আর্থিক সুবিধা দেয়ার কথা ঘোষণা করে। কিন্তু এখন পর্যন্ত ইউরোপিয়ানরা তাদের সে ঘোষণা বাস্তবায়ন করতে পারেনি।

এর প্রতিবাদে ইরান সম্প্রতি পরমাণু সমঝোতারই ২৬ ও ৩৬ নম্বর ধারা মেনে এ সমঝোতার কিছু কিছু ধারার বাস্তবায়ন স্থগিত রাখার কথা ঘোষণা করে।

তেহরান ইউরোপকে হুশিয়ার করে দিয়ে জানিয়েছে, পরবর্তী ৬০ দিনের মধ্যে ইউরোপ তাদের প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়ন করতে না পারলে ইরান পরমাণু সমঝোতা আরও কিছু ধারার বাস্তবায়ন স্থগিত রাখবে।

LEAVE A REPLY