ভিপি প্রার্থী নূরের উপর ছাত্রলীগের হামলা

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) নির্বাচনে বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র সংগ্রাম পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক ও ভিপি প্রার্থী নুরুল হক নূরের উপর ছাত্রলীগের হামলার অভিযোগ উঠেছে।

আজ সোমবার দুপুর ১২টার দিকে বেগম রোকেয়া হলে হামলার শিকার হন নূর। এ সময় উপস্থিত শিক্ষার্থীরা তাকে ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করে।

উপস্থিত শিক্ষার্থীরা বলেন, ‘রোকেয়া হলে ছাত্রলীগ নেত্রীরা কোটা আন্দোলনের নুরু ভাইকে মেরে আহত করেছে। একটি তালাবদ্ধ রুম থেকে তিনটি প্যাকেট উদ্ধার করা হয়েছে, সেই তালাবদ্ধ রুমটি এতক্ষণ খোলার দাবি জানানো হলেও মাত্র সেটি খোলা হয়েছে।’ তাদের দাবি, ওই প্যাকেটগুলোতে এমন কিছু ছিল যা গোপনে সরিয়ে ফেলা হয়েছে।

অন্যান্য হলে আজ সোমবার সকাল ৮টা থেকে ডাকসু নির্বাচন শুরু হলেও রোকেয়া হলে এক ঘণ্টা দেরিতে ভোটগ্রহণ শুরু হয়। এসময় একাধিক প্রার্থী অভিযোগ করে যে তিনটি ব্যালট বাক্স সরিয়ে ফেলা হয়েছে। পরে রোকেয়া হলে ভোট গ্রহণ বন্ধ করে দেওয়া হয়। ভোট কারচুপির অভিযোগে বিক্ষোভ করছে শিক্ষার্থীরা।

এর আগে সকাল ১১টার দিকে ভিপি প্রার্থী নুরুল হক বলেন, ‘ভোটের পরিবেশ ভালো না, আমরা শুনেছি ছাত্রলীগের কর্মীদের নির্দেশনা দেয়া আছে। প্রথম এবং দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র-ছাত্রীদের জোর করে ভোট দেয়ার পর লাইনে দাঁড়িয়ে থাকতে বাধ্য করা হবে, যাতে সাধারণ ভোটারা ভোটদানে যথেষ্ট সময় না পায়।’

এ সময় তিনি উপস্থিত সাংবাদিকদের আরও বলেন, ‘আমরা আশা করি, যেহেতু দীর্ঘ ২৮ বছর পর নির্বাচন হচ্ছে, সব রকম ষড়যন্ত্র ধ্বংস করে তাদের কাঙ্ক্ষিত প্রার্থীকে জয়ী করে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীদের অধিকারের কাজ করবে।’

আপনার কমেন্ট এখানে পোস্ট করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here