ময়লার গাড়িতেও বাড়ি ফিরছে মানুষ, ভাড়া ৩০০

0
9

আমার কাগজ প্রতিবেদক :

করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলায় সারাদেশে লকডাউন (বিধিনিষেধ) জারির পর থেকে দূরপাল্লার বাস বন্ধ হয়েছে। সবকিছু ছাপিয়ে স্বজনদের সঙ্গে ঈদ করতে বিভিন্ন জেলার উদ্দেশ্যে ছুটছে মানুষ।

মঙ্গলবার (১১ মে) বেলা ১২টায় আমিন বাজার ব্রিজে একটি ময়লার গাড়িতে বগুড়ার যাত্রী নিতে দেখা যায়। গাড়িটি ঢাকার গাবতলী থেকে ফিরছিল। গাড়ি থেকে নেমে একজন ‘বগুড়া তিনশো করে’ হাক ডাকতে শুরু করেন। এ সময় কয়েকজন যাত্রীকে ময়লার গাড়িতে উঠতে দেখা যায়। গাড়ির উচ্চতা বেশি হওয়ায় তারা চারপাশের বেষ্টনি ধরে গাড়িতে ওঠেন। ৭ থেকে ৮ জন যাত্রী উঠানোর পরে সাংবাদিকদের উপস্থিতি টের পেয়ে গাড়ি ছেড়ে দেন চালক।

সিরাজগঞ্জগামী এক যাত্রী বলেন, ‘এটা ঘাট পর্যন্ত যেতে পারবে না। তার আগেই পুলিশ নামিয়ে দেবে।’

এর কিছুক্ষণ পরই ব্রিজটির উপরে আরও কয়েকটি পিকআপ ভ্যান এসে থামে। এগুলোর চালক ও হেলপার সিরাজগঞ্জ রোড পর্যন্ত যাবে বলে ব্রিজে দাঁড়িয়ে থাকা যাত্রীদের জানায়। যাত্রীপ্রতি ১ হাজার টাকা দাবি করে গাড়িচালক।

এ সময় পিকআপ ভ্যানগুলোতে ৮ থেকে ১০ জন যাত্রী উঠতে দেখা যায়। চালকদের সঙ্গে কথা বলতে চাইলে ‘ভিডিও কইরেন না’ বলে এড়িয়ে যান।

এছাড়া প্রাইভেটকার, অ্যাম্বুলেন্স ও মোটরসাইকেল ভাড়া করে যাত্রীদের গন্তব্যে ফিরতে দেখা যায়। দরদাম করে যাত্রীরা এসব পরিবহনে উঠছেন। তবে চালকরা বলছেন, গন্তব্যে পৌঁছানোর পর ভাড়া নিচ্ছেন তারা।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে ট্রাফিক পুলিশ সদস্য সজিব আহমেদ জানান, ভাড়ায় চালিত এসব পরিবহন আটকাতে পুলিশ সর্বোচ্চ চেষ্টা করছে। তবে পুলিশের চোখ ফাঁকি দিয়ে গন্তব্যের উদ্দেশ্যে ছুটছে মানুষ।

আপনার কমেন্ট এখানে পোস্ট করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here