সিটি নির্বাচনে মোটরসাইকেল ব্যবহার করতে পারবেন সাংবাদিকরা

ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি-ডিএসসিসি) নির্বাচনে মোটরসাইকেল ব্যবহার করতে পারবেন সাংবাদিকরা।

রোববার (২৬ জানুয়ারি) সকালে রাজধানীর আগারগাঁওয়ে অবস্থিত নির্বাচন ভবনে ইসি বিটের সাংবাদিকদের সঙ্গে আলোচনার সময় এ তথ্য জানান ইসির জ্যেষ্ঠ সচিব মো. আলমগীর।

তিনি বলেন, আসন্ন ঢাকার সিটি করপোরেশন নির্বাচনে সংবাদ সংগ্রহের জন্য সাংবাদিকদের মোটরসাইকেল ব্যবহার করার জন্য প্রাথমিক সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। তবে এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে কমিশন।

মোটরসাইকেল ব্যবহারের ক্ষেত্রে অবশ্যই নির্বাচন কমিশন থেকে সরবরাহ করা স্টিকার ও কার্ড এবং সাংবাদিকদের নিজ অফিসের পরিচয়পত্র সঙ্গে থাকতে হবে বলেও জানান সচিব।

মো. আলমগীর আরও জানান, নির্বাচনের সংবাদ সংগ্রহ করার জন্য পুলিশ যেন সাংবাদিকদের সর্বাত্মক সহযোগিতা করে, সেজন্য স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের সঙ্গে কথা বলবেন তিনি।

গত ২০ জানুয়ারি নির্বাচন কমিশন থেকে জারি করা এক আদেশে জানানো হয়, ডিএনসিসি ও ডিএসসিসি নির্বাচন উপলক্ষে ৩০ জানুয়ারি দিবাগত রাত ১২টা থেকে ২ ফেব্রুয়ারি সকাল ৬টা পর্যন্ত মোটরসাইকেল চলাচলের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি থাকবে। আর ভোটের আগের দিন মধ্যরাত অর্থাৎ ৩১ জানুয়ারি রাত ১২টা থেকে ১ ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত নির্বাচনী এলাকায় বন্ধ থাকবে যান চলাচল।

এক্ষেত্রে রিটার্নিং কর্মকর্তার অনুমতি সাপেক্ষে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী/তাদের নির্বাচনী এজেন্ট, দেশি/বিদেশি পর্যবেক্ষকদের (পরিচয়পত্র থাকতে হবে), নির্বাচনের কাজে নিয়োজিত কর্মকর্তা-কর্মচারী, আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য, নির্বাচনের বৈধ পরিদর্শক এবং কতিপয় জরুরি কাজ যেমন- অ্যাম্বুলেন্স, ফায়ার সার্ভিস, বিদ্যুৎ, গ্যাস, ডাক, টেলিযোগাযোগ ইত্যাদি কার্যক্রমে ব্যবহারের জন্য উল্লেখিত যানবাহন ও মোটরসাইকেল চলাচলে নিষেধাজ্ঞা প্রযোজ্য হবে না।

আগামী ১ ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিত হবে ঢাকার দুই সিটি করপোরেশনের নির্বাচন।

আপনার কমেন্ট এখানে পোস্ট করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here